রানারের ২৪ ঘন্টার বিডিংয়ে সর্বোচ্চ ৮৪ টাকা দর প্রস্তাব

0
57
-

runnarদেশ প্রতিক্ষণ, ঢাকা: রানার অটোমোবাইলসের ২৪ ঘন্টার নিলামে (বিডিং) সর্বোচ্চ ৮৪ টাকায় দর প্রস্তাব করেছেন যোগ্য বা প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীরা। এ সময় ৫০ জন বিডার কোম্পানিটির ৫৪ কোটি ৮৮ লাখ ৭০ হাজার ২০০ টাকার শেয়ার কেনার জন্য দর প্রস্তাব করেছেন। মঙ্গলবার বিকাল ৫টা পর্যন্ত (১১ সেপ্টেম্বর) সময়ে এই চিত্র দেখা গেছে।

রানার অটোমোবাইলসের কাট-অফ প্রাইস নির্ধারনের লক্ষ্যে ১০ সেপ্টেম্বর বিকাল ৫টায় নিলাম শুরু হয়েছে। যা চলবে টানা ৭২ ঘন্টা বা ১৩ সেপ্টেম্বরের বিকাল ৫টা পর্যন্ত।

এদিন বিকাল ৫টা পর্যন্ত বিডিংয়ে ১জন বিডার প্রতিটি ৮৪ টাকা করে ১ লাখ ৪৮ হাজার ৮০০টি শেয়ার কেনার জন্য দর প্রস্তাব করেছেন। যার মোট দর ১ কোটি ২৪ লাখ ৯৯ হাজার ২০০ টাকা। এর আগে কোম্পানিটির শেয়ারে সর্ব প্রথম ৮১ টাকায় দর প্রস্তাব করা হয়। যেখানে ১জন বিডার ৮১ টাকা করে ১ লাখ ৫৪ হাজার ৩০০টি শেয়ার কেনার জন্য দর প্রস্তাব করেন। যার মোট দর ১ কোটি ২৪ লাখ ৯৮ হাজার ৩০০ টাকা।

নিলামের ২৪ ঘন্টায় ৫০ জন বিডার অংশগ্রহন করেছেন। তারা সর্বোচ্চ ৮৪ টাকা থেকে ৩০ টাকায় দর প্রস্তাব করেছেন। এই বিডাররা ১ কোটি ৭ লাখ ২৮ হাজার ২০০টি শেয়ার ৫৪ কোটি ৮৮ লাখ ৭০ হাজার ২০০ টাকা দিয়ে কিনতে চেয়েছেন।

এক্ষেত্রে সর্বোচ্চ ১২ জন বিডার প্রতিটি শেয়ার ৫০ টাকা করে কিনতে চেয়েছেন। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৮জন বিডার ৮০ টাকা করে শেয়ার কিনতে চেয়েছেন। আর তৃতীয় সর্বোচ্চ ৪জন ৪০ টাকা করে দর প্রস্তাব করেছেন। এর আগে ১০ জুলাই বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) কোম্পানিটির বিডিং অনুমোদন দেয়।

রানার অটোমোবাইলস লিমিটেড শেয়ারবাজার থেকে ১০০ কোটি টাকা উত্তোলন করবে। এরমধ্যে বিডিংয়ে যোগ্য বিনিয়োগকারীদের জন্য বরাদ্দ ৬২ কোটি ৫০ লাখ টাকা। এই বরাদ্দকৃত টাকার উপরে বিডিংয়ের মাধ্যমে নির্ধারিত হবে কাট-অফ প্রাইস।

কোম্পানিটি বুক বিল্ডিং পদ্ধতিতে প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের (আইপিও) মাধ্যমে শেয়ারবাজার থেকে ১০০ কোটি টাকা উত্তোলন করবে। যা দিয়ে কোম্পানিটি গবেষণা ও উন্নয়ন, যন্ত্রপাতি ক্রয়, ব্যাংক ঋণ পরিশোধ এবং আইপিও খরচ খাতে ব্যয় করা হবে।

৩০ জুন ২০১৭ পর্যন্ত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি নিট সম্পত্তি মূল্য (পুনর্মূল্যায়ন সঞ্চিতিসহ) দাঁড়িয়েছে ৫৫.৭০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি নিট সম্পত্তি (পুনর্মূল্যায়ন সঞ্চিতি ব্যতীত) দাঁড়িয়েছে ৪১.৯৪ টাকা।

আর কর পরবর্তী ভারিত গড় হারে শেয়ার প্রতি মুনাফা (ইপিএস) হয়েছে ৩.৩১ টাকা। কোম্পানিটির ইস্যু ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে নিয়োজিত রয়েছে আইডিএলসি ইনভেস্টমেন্ট লিমিটেড।


-

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here